আজ শনিবার | ২০ জানুয়ারি, ২০১৮ ইং
| ৭ মাঘ, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ | ২ জমাদিউল-আউয়াল, ১৪৩৯ হিজরী | সময় : সকাল ৬:৫১

মেনু

বঙ্গবন্ধুর ভাষণের স্বীকৃতিতে নড়িয়ায় আনন্দ শোভাযাত্রা

বঙ্গবন্ধুর ভাষণের স্বীকৃতিতে নড়িয়ায় আনন্দ শোভাযাত্রা

ইলিয়াছ মাহমুদ, নিউজ রুম এডিটর
শনিবার, ২৫ নভেম্বর ২০১৭
১১:১৫ পূর্বাহ্ণ
450 বার

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৭ মার্চের ঐতিহাসিক ভাষণ ইউনেস্কোর ‘মেমোরি অব দ্য ওয়ার্ল্ড ইন্টারন্যাশনাল রেজিস্টারে’ অন্তর্ভূক্তির মাধ্যমে বিশ্বপ্রামাণ্য ঐতিহ্যের স্বীকৃতিতে নড়িয়ায় উপজেলা প্রশাসনের উদ্যোগে আনন্দ শোভাযাত্রা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

শনিবার সকাল দশটার দিকে নড়িয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সানজিদা ইয়াসমিনের নেতৃত্বে উপজেলা কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার চত্তর থেকে একটি বর্নাঢ্য শোভাযাত্রা বের হয়ে শহরের গুরত্বপুর্ন সড়কগুলো প্রদক্ষিন শেষে পূনরায় শহীদ মিনার চত্তরে এসে শেষ হয়। শোভাযাত্রাটি বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীরা সহ এলাকার বিভিন্ন শ্রেনী-পেশার মানুষ স্বতস্ফূর্তভাবে অংশগ্রহন করে।

এর আগে সংক্ষিপ্ত এক আলোচনা সভায় নড়িয়া উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান এ কে এম ইসমাইল হক বলেন, এটা শুধু বঙ্গবন্ধুর স্বীকৃতি নয়, দেশের জন্যও এক বড় স্বীকৃতি। বঙ্গবন্ধু শুধু বাংলাদেশের নেতা ছিলেন না, তিনি বিশ্বের নির্যাতিত নিপীড়িত মানুষের নেতা ছিলেন। বঙ্গবন্ধু আমাদের মাঝে নেই কিন্তু তার যোগ্য কন্য জননেত্রী শেখ হাসিনা আমাদের মাঝে আছেন। তিনি বাংলাদেশকে বিশ্বের বুকে এক অনন্য স্থানে নিয়ে গেছেন। আমরা জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বঙ্গবন্ধুর আদর্শের আদলে সূখী-সমৃদ্ধ সোনার বাংলাদেশ গড়ে তোলবো।

এসময় অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, নড়িয়া থানা’র অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আসলাম উদ্দিন, নড়িয়া উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান জাকির বেপারী, নড়িয়া পৌর মেয়র শহিদুল ইসলাম বাবু রাড়ি সহ বিভিন্ন সরকারী-বেসরকারী দফতরের কর্মকর্তা বৃন্দ।

প্রসঙ্গত, ইউনেস্কোর মহাপরিচালক ইরিনা বোকোভা প্যারিসের ইউনেস্কোর সদর দফতরে গত ২৯ অক্টোবর বঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের ভাষণকে বিশ্ব প্রামাণ্য ঐতিহ্য হিসেবে স্বীকৃতি দেওয়ার সিদ্ধান্ত আনুষ্ঠানিকভাবে ঘোষণা করেন। ইউনেস্কো বিশ্বের গুরুত্বপূর্ণ প্রামাণ্য ঐতিহ্যের তালিকা সংরক্ষণ করে থাকে। মেমোরি অব দ্য ওয়ার্ল্ড ইন্টারন্যাশনাল রেজিস্টারের অন্তর্ভুক্ত প্রামাণ্য ঐতিহ্যের তালিকা বিশ্ব প্রেক্ষাপটে গুরুত্ববহ। ইন্টারন্যাশনাল রেজিস্টারের লক্ষ্য হচ্ছে বিশ্বের প্রামাণ্য ঐতিহ্য সংরক্ষণ করা এবং বিশ্ববাসী যাতে ঐতিহ্য সম্পর্কে সহজে জানতে পারে তা নিশ্চিত করা।

ঐতিহাসিক ৭ মার্চ বাঙালি জাতির স্বাধীনতা সংগ্রাম ও মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাসে স্বর্ণাক্ষরে লেখা অবিস্মরণীয় গৌরবের এক অনন্য দিন। সুদীর্ঘকালের আপসহীন আন্দোলনের এক পর্যায়ে ১৯৭১ সালের এই দিনে ঐতিহাসিক রেসকোর্স ময়দানে (বর্তমানে সোহরাওয়ার্দী উদ্যান) বাঙালি জাতির অবিসংবাদিত নেতা, হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙালি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এক উত্তাল জনসমুদ্রে বাংলাদেশের স্বাধীনতার ডাক দিয়েছিলেন। ‘এবারের সংগ্রাম আমাদের মুক্তির সংগ্রাম, এবারের সংগ্রাম আমাদের স্বাধীনতার সংগ্রাম’ বঙ্গবন্ধুর এই তেজোদৃপ্ত ঘোষণাই ছিল প্রকৃতপক্ষে আমাদের স্বাধীনতার ভিত্তি।

সংবাদটি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার করুন
Share on FacebookShare on Google+Tweet about this on TwitterShare on LinkedInPrint this page

মন্তব্য

comments

শেয়ার করুন
error: Content is protected !!