শরীয়তপুরে পরিবহন শ্রমিকদের কর্মবিরতি প্রথম দিন

550

বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন শ্রমিক ফেডারেশন ৮ দফার দাবিতে ৪৮ ঘন্টা কর্মবিরতি কর্মসূচি দিয়েছে। রোববার সকাল ৬টা থেকে সারা দেশের ন্যায় শরীয়তপুর জেলা সড়ক পরিবহন শ্রমিক ইউনিয়ন কর্মবিরতি কর্মসূচি পালন করছে। কোন প্রকার সহিংসতা ছাড়াই শেষ হয়েছে প্রথম দিনের কর্মবিরতি। শরীয়তপুরের সড়কে দেখা যায়নি যাত্রীবাহি বাস, মালবাহি ট্রাক, লরি, মাইক্রোবাস। তবুও হয়রানীর শিকার হয়নি যাত্রি সাধারণ। সড়কে চলছে যাত্রিবাহি মোটরসাইকেল, বেবীট্যাক্সি, ট্যাম্পু, অটোবাইক, রিক্সা, ভ্যান, নছিমন সহ বিকল্প পরিবহন।
সকাল ৬টা থেকে পৌরবাস টার্মিনাল, কোর্ট এলাকায় সিটিং সার্ভিস বাস কাউন্টার, প্রেমতলা ও মনহর বাজার মোড়ে যাত্রির কিছুটা চাপ লক্ষ্য করা গেছে। বেলা বাড়ার সাথে সাথে বিকল্প পরিবহন যাত্রি বহন শুরু করলে চাপ অনেকটা কমে যায়। সকাল ১০টা থেকে বৃষ্টি শুরু হওয়ায় রাস্তা ফাঁকা হয়ে যায়। বিকাল পর্যন্ত আকাশ মেঘাচ্ছন্ন থাকায় দূরপাল্লায় কোন যাত্রি রওয়ানা হয়নি। তাছাড়া সড়ক পরিবহন শ্রমিক ফেডারেশন তাদের কর্মসূচি পূর্বে থেকেই ঘোষনা করে আসছে তাই জরুরী যাত্রিরা গতকাল গন্তব্যে পৌঁছেছে।
শরীয়তপুর আন্তজেলা সড়ক পরিবহন শ্রমিক ইউনিয়নের কার্যকরি সভাপতি মোক্তার হোসেন বলেন, বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন শ্রমিক ফেডারেশনের ডাকে আমরা আজ কর্মবিরতি পালন করছি। সড়ক পরিবহন আইন ২০১৮ এর শ্রমিক স্বার্থ বিরোধী ধারা সমূহ সংশোধনের লক্ষ্যে আমাদের এ কর্মবিরতি। আমাদের দাবীসমূহ মেনে না নেওয়া হলে সড়ক পরিবহন শ্রমিক ফেডারেশনের ঘোষণা অনুযায়ী কর্মবিরতি পালন করে যাব।

::শেয়ার করুন::
Share on Facebook
Facebook
Share on Google+
Google+
Tweet about this on Twitter
Twitter
Share on LinkedIn
Linkedin
Print this page
Print
Email this to someone
email

মন্তব্য

comments