আজ শনিবার, ১৮ই মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ৪ঠা জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ১০ই জিলকদ, ১৪৪৫ হিজরি

নড়িয়ায় সেপটিক ট্যাংকে নেমে প্রাণ গেল দুইজনের

নড়িয়া প্রতিনিধি: শরীয়তপুর নড়িয়া উপজেলার ভোজেশ্বর ইউনিয়নের পাঁচক গ্রামে নবনির্মিত সেফটিক ট্যাংকের সেন্টারিংয়ের কাঠ খুলতে গিয়ে দুইজন নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় আরও তিনজন গুরুতর আহত হয়েছেন। আহতরা শরীয়তপুর সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। শুক্রবার দুপুরের দিকে উপজেলার ভোজেশ্বর ইউনিয়নের পাঁচক গ্রামের সালাউদ্দিন গোরাপির বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন- পাঁচক গ্রামের শাহ আলম গোরাপির ছেলে শাহাদাৎ গোরাপি (২০) ও লিটন খানের ছেলে তারেক খান (২০) ।

নড়িয়া থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) একেএম মঞ্জুরুল হক আকন্দ বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, শুক্রবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে সালাউদ্দিন গোরাপির বাড়িতে নবনির্মিত সেপটিক ট্যাংকের ভেতর সেন্টারিংয়ের কাঠ খুলতে নামেন শাহাদাৎ গোরাপি। তখন তিনি আহত হন। শাহাদাৎকে উদ্ধার করতে ট্যাংকিতে নামেন আজিজুল বাঘা (৩৫), রুবেল গোরাপি (২৫), অপু গোরাপি (২৬) ও তারেক খান (২০) । তখন তারাও গুরুতর আহত হয়ে পড়েন। পরে স্থানীয়রা ট্যাংকির একাংশ ভেঙে তাদের উদ্ধার করে শরীয়তপুর সদর হাসপাতালে ভর্তি করে। চিকিৎসাধীন অবস্থায় দুপুর ২টার দিকে কর্তব্যরত চিকিৎসক শাহাদাৎ গোরাপি ও তারেক খানকে মৃত বলে ঘোষণা করেন। আহত অন্যরা সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।