বৃহস্পতিবার, ৯ জুলাই, ২০২০ ইং, ২৫ আষাঢ়, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ১৭ জিলক্বদ, ১৪৪১ হিজরী
বৃহস্পতিবার, ৯ জুলাই, ২০২০ ইং, ২৫ আষাঢ়, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ১৭ জিলক্বদ, ১৪৪১ হিজরী
বৃহস্পতিবার, ৯ জুলাই, ২০২০ ইং

দ্বিতীয় দিনের মতো কৃষকের ধান কেটে দিলো নড়িয়া উপজেলা ছাত্রলীগ

দ্বিতীয় দিনের মতো কৃষকের ধান কেটে দিলো নড়িয়া উপজেলা ছাত্রলীগ

কৃষক বাঁচলে বাঁচবে দেশ, শেখ হাসিনার বাংলাদেশ, এই কথা বুকে ধারন করে দ্বিতীয় বারের মত ২ফুট পানিতে নেমে এক অসহায় কৃষকের জমির পাকা ধান কেটে দিলো নড়িয়া উপজেলা ছাত্রলীগ।।

গত কয়েক দিনের বৃষ্টিতে জমিতে পানি জমে জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হয়, যার কারণে ধান কাটার শ্রমিক পাওয়া যাচ্ছিল না, নড়িয়া উপজেলা ছাত্রলীগ তা জানতে পেরে সেই কৃষকের ধান কেটে বাসায় পৌঁছে দেয়।
শনিবার (২ মে) সকাল থেকে দুপুর পর্যন্ত ন‌ড়িয়া উপজেলার ঘড়িসার ইউনিয়নের হালইসার গ্রামের একাধিক কৃষকের পাকা ধান কেটে দেন নড়িয়া উপজেলা ছাত্রলীগের নেতা-কর্মীরা।

দেশে বর্তমানে করোনা পরিস্থিতির কারণে শ্রমিক সংকট, কালবৈশাখী ঝড় ও বৃষ্টিতে জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হয়ে কৃষকের পাকা ধান নষ্ট হয়ে যাচ্ছিল। কৃষকদের সমস্যার খবর পেয়ে ন‌ড়িয়া উপজেলা থেকে আসাদুজ্জামান বিপ্লব এর নেতৃত্বে সংগঠনের ৩০সদস্যের একটি দল হালইসার গ্রামের কৃষকদের জমির পাকা ধান দুই ফুট পানিতে নেমে কেটে দিয়ে বাসায় পৌঁচে দেয়।।

এসময় নড়িয়া উপজেলার ছাত্রলীগ নেতা আসাদুজ্জামান বিপ্লব, নয়ন শিকদার, নূরে আলম, রাশেদ চৌকিদার, রিয়াদ শেখ, আমিনুল ইসলাম, নেসার, মাহবুব মাদবর, সুমন ছৈয়াল, স্বপন দেওয়ান, সোহাগ আহম্মেদ, রফিকুল ইসলাম আকাশ, হিমেল, ফয়সাল, শামিম শিকদার, দূর্জয় মুন্সি, আবু তাহের সহ ছাত্রলীগের অন্যান্য নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলো।

হালইসার গ্রামের কৃষক মোঃ শাহজাহান মল্লিক ব‌লেন, করোনা ভাইরাসের কারনে আমি ধান কাটার শ্রমিক পাচ্ছিলাম না, আবার বৃষ্টিতে ধান পানিতে তালিয়ে যাচ্ছিল। হঠাৎ নড়িয়া উপজেলা ছাত্রলী‌গ নেতাকর্মীরা এসে আমার ধান কেটে বাসায় পৌঁছে দিয়েছে। এতে আমার অনেক উপকার হয়েছে। আমি তাদের জন্য দোয়া করি।

নড়িয়া উপজেলা ছাত্রলীগ নেতা আসাদুজ্জামান বিপ্লব বলেন, কিছু দিন বৃষ্টির কারণে আমাদের কৃষকের জমিতে জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হয়েছে, তারা ধান কাটতে পারছে না। এক কৃষক আমাদের ফোন দিয়ে বল্লে আমরা উপজেলা ছাত্রলীগ এসে তার ধান কেটে দিয়ে যাই। কৃষকের যেকোনো সংকটে আমরা তাদের পাশে আছি এবং থাকবো।

উপজেলা ছাত্রলীগের আরেক কর্মী মোঃ নূরে আলম বলেন, “কৃষক বাঁচলে বাঁচবে দেশ, শেখ হাসিনা’র বাংলাদেশ”। আমরা উপজেলা ছাত্রলীগ সবসময় কৃষকের পাশে আছি। আজকে আমরা দ্বিতীয় দিনের মতো হালইশার গ্রামের এক অসহায় কৃষকের ধান কেটে দিয়েছি। জননেতা এ.কে.এম এনামুল হক শামীম ভাইয়ের নির্দেশে আমাদের এই কাজ অব্যাহত থাকবে।

পা‌নিসম্পদ উপমন্ত্রী ও শরীয়তপুর-২ আস‌নের সংসদ সদস্য একেএম এনামুল হক শামীম ছাত্রলীগের নেতা-কর্মীদের শরীয়তপু‌রের কৃষকদের পাশে থাকার নির্দেশ দিয়েছেন। তারই নির্দেশে নড়িয়া উপজেলা ছাত্রলীগ কৃষকের ধান কেটে দিচ্ছে বলে জনান নেতাকর্মীরা।

মন্তব্য

comments

শরীয়তপুর নিউজে প্রকাশিত কোন তথ্য, ছবি, রেখচিত্র, আলোকচিত্র ও ভিডিওচিত্র কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যাবহার করা নিষেধ!!


error: Content is protected !!